ঈদের দিনে কারাগারে যা খেয়েছেন পাপিয়া-সাবরিনা

নানা অ’পকর্মের অ’ভিযোগে গ্রে’প্তার যুব মহিলা লীগের বহিষ্কৃত নেত্রী শামীমা নূর পাপিয়া ও করো’নাভাই’রাস পরীক্ষার ভু’য়া প্রতিবেদন দেওয়ার ঘটনায় আ’লোচিত জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউটের চিকিৎসক ডা. সাবরিনার জীবনের প্রথম ঈদ কাটছে কারাগারে।

কারা কর্মক’র্তারা জানান, কারাবন্দীদের জন্য ঈদের দিন সকালে পায়েস ও মুড়ি, দুপুরে সাদা ভাত, ডিম ও আলুর দম ও রাতে পোলাও মাংস, ডিম, মিস্টি, দই, সালাদ, কোল্ড ড্রিংকস ও পান সুপারিসহ বিশেষ খাবারের আয়োজন রয়েছে।

কারাগারে নিজেদের জীবনের প্রথম ঈদ এসব খাবার খেয়েই কাটিয়েছেন ডা. সাবরিনা ও যুব মহিলা লীগের বহিষ্কৃত নেত্রী শামীমা নূর পাপিয়া।

কাশিমপুর মহিলা কারাগারের জে’লার মো. আনোয়ার হোসেন বলেন, পাপিয়াকে কাশিমপুর কেন্দ্রীয় মহিলা কারাগারে বিশেষ সেলে এবং সাবরিনাকে আলাদা কক্ষে রাখা হয়েছে।

‘এই কারাগারে ৭৭৩ ব’ন্দির মধ্যে ২৪ জন ফাঁ’সির দ’ণ্ডপ্রাপ্ত ও অর্ধশত যাব’জ্জীবন দ’ণ্ডিত আ’সামি রয়েছেন। ঈদ উপলক্ষে অসহায় ও দুঃস্থ ৪০ জন নারী ব’ন্দিকে শাড়ি দেওয়া হয়েছে।’

এই কারাগারের জে’লার উম্মে সালমা জানান, এই কারাগারে একহাজার ৩৩৫ জন ব’ন্দি রয়েছেন। তাদের মধ্যে ৮৭ জন ফাঁ’সির ও ১৭৪ জন যাব’জ্জীবন দ’ণ্ডপ্রাপ্ত।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*